বাণী : মীর নঈমুল ইসলাম, চেয়ারম্যান,চট্টগ্রাম

মীর নঈমুল ইসলাম শিক্ষকতা কেবল পেশা নয়, এটি একটি ব্রত। জাতি গঠনের সৎযোগ্য কারিগর গড়ে তোলাই একজন আদর্শ্ শিক্ষকের ব্রত। শিক্ষার মূল কথা-নিজেকে জানা, জীবনের সর্বস্তরে ন্যায়-নীতি ও মানবিক মূল্যবোধ সৃষ্টি করা।জীবনকে শান্তি, সম্প্রতি ও কল্যাণময় করে গড়ে তুলতে হলে শিক্ষার বিকল্প নেই। আদর্শ্ শিক্ষক আদর্শ্ শিক্ষাব্যবস্থা হতে পারে না। প্রখ্যাত শিক্ষাবিদ হোয়াইট হেড যথার্র্থ বলেছিলেন, ‘কোন শিক্ষাব্যবস্থাই তার শিক্ষকদের চাইতে উত্তম নয়’। বলা বাহুল্য জাতির সামনে যে ভিশন আজ সরকার তুলে ধরেছেন তা বাস্তবায়নের জন্য যোগ্য শিক্ষকের ভূমিকা যে কত বেশি তা বলে বোঝানো যাবে না। একজন আদর্শ্ শিক্ষকের কখনো মুত্য হয় না। তাঁর সাধনার ফসল-যোগ্য নাগরিকদের মধ্য দিয়ে প্রজন্মানুক্রমে বেঁচে থাকেন। তাঁর শিক্ষার আদর্শ্ ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে পথ দেখিয়ে চলে। প্রচলিত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বাইরেও থাকতে পারেন একজন আদর্শ্ শিক্ষক।এমন একজন মহান শিক্ষক হলেন চীনের মহান নেতা মাও দে জং। তিনি যখন পরিণত বয়সে প্রয়াত হন, তখন বিপুল জনসংখ্যা অধ্যুষিত দেশটিতে রাষ্ট্রীয়ভাবে তিন মিনিট নীরবতা পালন করা হয়েছিল। সে সময় সমগ্র জাতি যেন সম্পূণ স্থবির ও শোকস্তব্ধ হয়ে গিয়েছিল। শুধু চীন নয়, বরং সমগ্র বিশ্ব সভ্যতার ইতিহাসে বাঁকবদলকারী এই মহান নেতার প্রতি পুরো দেশ ও জাতির পক্ষ থেকে নিবেদিত অন্তিম শ্রদ্ধার্ঘে কেবল লেখা ছিল : “তিনি ছিলেন আমাদের মহান শিক্ষক।” আমরা যারা শিক্ষকতাকে পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছি তাদের উচিত এসব মহান শিক্ষকদের জীবনাদশ থেকে শিক্ষা গ্রহণ করা।
  • নিউজ ও ইভেন্টস

    • এই মুহূর্তে কোনো নিউজ নেই
    সকল নিউজ
  • নোটিশ বোর্ড

    • এই মুহূর্তে কোনো নোটিশ নেই
    সকল নোটিশ